Monday, March 20জাতির কথা বলে
Shadow

বেনামি ঋণ বিতরণের সঙ্গে জড়িতদের আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে। ড. মোস্তাফিজুর রহমান

গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) সম্মানীয় ফেলো ড. মোস্তাফিজুর রহমান বলেছেন, বেনামি ঋণ বিতরণ বন্ধ এবং খেলাপি ঋণ আদায়ে আইনের কঠোর প্রয়োগ করতে হবে। একই সঙ্গে বেনামি ঋণ বিতরণের সঙ্গে জড়িতদের আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে।
বাংলাদেশ প্রতিদিনের সঙ্গে আলাপচারিতায় তিনি এসব কথা বলেন।
ড. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, এখন বেনামি ঋণ ও কুঋণের কারণে ব্যাংক খাতে নেতিবাচক প্রভাব পড়বে। এটা অর্থনীতির জন্য খুবই ক্ষতিকারক। সুতরাং বাংলাদেশের যেসব প্রচলিত আইন আছে সে মোতাবেক বাংলাদেশ ব্যাংককে স্বাধীনভাবে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে এদের আইনের আওতায় নিয়ে আসার দিকে জোর দিতে হবে।
তিনি বলেন, এখন অর্থনীতি একটা চ্যালেঞ্জের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। এ সময়ে ব্যাংক খাতের ব্যবস্থাপনার মান বাড়ানো ও এ ধরনের অনিয়মের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার উৎকৃষ্ট সময়। বেসরকারি ব্যাংকের এক পরিচালকের অন্য ব্যাংক থেকে ঋণ নেওয়ার বিষয়ে ড. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ব্যাংক পরিচালকদের বিভিন্ন সময় নানানরকম সুবিধা দেওয়া হয়েছে। যেমন একই পরিবার থেকে চারজন পরিচালক নিয়োগ। এসব পরিচালককে একটানা নয় বছর ব্যাংকে থাকার সুযোগ দেওয়া হয়েছে। এগুলোর পরিবর্তে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেওয়ার দিকে নজর দিতে হবে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *